মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৬

ঠাকুরগাঁও ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন জমা পূনরায় তদন্তের নির্দেশ

নিউজ ডেস্কঃ ঠাকুরগাঁওয়ের দুওসুও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুস ছালামের জুয়া খেলা ও ইয়াবা সেবনের অভিযোগ তদন্তের প্রতিবেদন জমা দিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ যোবায়ের হোসেন। গত বৃহস্পতিবার ২৪ ডিসেম্বর রাতে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে তদন্ত প্রতিবেদনটি জমা দেন তিনি। প্রেরিত প্রতিবেদনটিতে টেকনিশিয়ানের সহযোগীতা চাওয়ায় হয়েছে। এ মর্মে আজ রোববার জেলা প্রশাসন বিষয়টি পুনরায় তদন্ত করে আরেকটি প্রতিবেদন জমা দেয়ার নির্দেশ প্রদান করেছেন।
জেলা প্রশাসন কার্যালয় সুত্রে জানা গেছে, গত ১৭ ডিসেম্বর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের স্থানীয় সরকারের ভারপ্রাপ্ত উপ-পরিচালক ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক নুর কুতুবুল আলম স্বাক্ষরিত একটি চিঠির মাধ্যমে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অভিযোগ তদন্তে উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে নির্দেশ দেওয়া হয়। চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, দুওসুও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুস ছালাম তার সহযোগীদের নিয়ে ইউনিয়ন পরিষদে জুয়া ও মাদক সেবনসহ বিভিন্ন অভিযোগে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হয়। যা প্রশাসনের দৃষ্টিগোচর হয়। উক্ত বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে নিজে অত্যন্ত গুরুত্বসহকারে তদন্ত করে তিন কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়। এরপর গত বৃহস্পতিবার ২৪ (ডিসেম্বর) রাতে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেলা প্রশাসকের কাছে তদন্ত প্রতিবেদনটি জমা দেন। তবে প্রতিবেদনটি সু-স্পষ্ট নয়।
এ বিষয়ে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক নুর কুতুবুল জানান, তদন্ত প্রতিবেদনটি উপজেলা নির্বাহী অফিসার জমা দিয়েছেন। প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে ভিডিওটিতে যে ব্যক্তিকে দেখা গেছে তিনি দুওসুও ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুস ছালাম। তবে শুনানীতে চেয়ারম্যান দাবি করেছেন ভিডিও এডিট করা হয়েছে। এটি আসলেই এটি করা হয়েছে কি না সে বিষয়ে টেকনিশিয়ানদের কাছে মতামত না নেয়া ছাড়া সু-স্পষ্ট মতাতম দিতে পারছে না। জেলা প্রশাসক স্যার সিদ্ধান্ত দিয়েছেন সকল সহযোগীতা গ্রহন করে সুস্পস্ট আরেকটি প্রতিবেদন জমা দিতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে ।
জেলা শহরের সবচেয়ে পুরাতন প্রতিষ্ঠান আকাশ ভিডিও ও কম্পিউটার সেন্টার, প্রিন্স কম্পিউটারের স্বতাধিকারি মোঃ বাবলু ও মাহমুদ হাসান প্রিন্সসহ কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের কর্মরত স্বপন ও সাইফুলসহ অনেকে জানান চেয়ারম্যানের মাদক সেবনের ভিডিওটি বিন্দু মাত্রও এডিট করা হয়নি। ২০ বছরের অভিজ্ঞতা থেকে ভিডিওটি কোনভাবেই এডিটিং বলে বিষয়টি দাবি করেছেন তারা ।
উল্লেখ, কয়েকদিন আগে দুওসুও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুস ছালাম তার সহযোগীদের নিয়ে ইউনিয়ন পরিষদে জুয়া ও মাদক সেবনসহ বিভিন্ন অভিযোগে গণমাধ্যমে সংবাদ পরিবেশন হয়। সেই সাথে চেয়ারম্যান ও সহযোগীরা জুয়া ও মাদক সেবন করছেন এ সংক্রান্ত একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *