শুক্রবার, ডিসেম্বর ৩

ঠাকুরগাঁও সীমান্তের নাগর নদীতে কুমির আতঙ্ক পরিদর্শন করেও খুজে পায়নি প্রশাসন

নিউজ ডেস্কঃ ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর উপজেলায় সীমান্তে নাগর নদীতে কুমিরের দেখা মিলেছে। স্থানীয়দের এমন অভিযোগে ভিত্তিতে প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিদের তরফ থেকে ঘটনাস্থল ও নদীর আশপাশ পরিদর্শন করলেও কুমিরের কোন অস্তিত্ব মিলেনি বলে নিশ্চিত করেছেন হরিপুর উপজেলার নির্বাহী অফিসার মোঃ আব্দুল করিম।
প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়, গেল সপ্তাহে জেলার হরিপুর উপজেলা সীমান্তের শিংহারী এলাকায় নাগর নদীতে বেশকয়েকটি কুমির পানিতে ভাসতে দেখে বলে জানান স্থানীয়রা। এ ঘটনার পর প্রশাসনের কর্মকর্তা ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা ঘটনাস্থল পরিদর্শনসহ আশাপাশের এলাকা পরিদর্শন করে কুমিরের কোন অস্তিত্ব পায়নি। তবে স্থানীয়দের অভিযোগে প্রেক্ষিতে বিষয়টি জেলা প্রশাসনের ঊর্ধতন কর্মকর্তা ও দিনাজপুরের বনবিভাগ কর্মকর্তাদের অবগত করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত নাগর নদীতে একটি কুমিরেরও অস্তিত্ব পাওয়া যায়নি। যদি কুমিরের সন্ধান পাওয়া যায় তাহলে প্রশাসন এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিবেন।
এ বিষয়ে হরিপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আব্দুল করিম জানান, স্থানীয়রা বলছেন নাগর নদীতে বেশ কয়েকটি কুমির দেখা গেছে। কিন্তু প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিরা নদীর আশপাশ পরিদর্শন করেও এখন পর্যন্ত একটি কুমিরেরও অস্তিত্ব পায়নি। আর বলা হচ্ছে নদীতে জেলেদের মাছ ধরা নিষেধ করা হয়েছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ ধরনের কোন নিষেধাজ্ঞা প্রদান করা হয়নি। তবে বর্তমান সময়ে পানি বেশি হওয়ায় নদীতে গোসল করা মাছ ধরার বিষয়ে সাবধানতা অবলম্বন করা ভাল। আর কুমিরের সন্ধান পেলে অবশ্যই প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *