শনিবার, জুলাই ২

ঠাকুরগাঁওয়ে মানসম্মত বীজ উপাদান ও সংরক্ষণ বিষয়ক প্রশিক্ষণ

নিউজ ডেস্কঃ ঠাকুরগাঁওয়ে মানসম্মত ধান বীজ উপাদান ও সংরক্ষণ বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ বুধবার সদর উপজেলার শুখানপুখুরী ইউনিয়ন ফেডারেশনে আর ডি আর এস বাংলাদেশ, আন্তর্জাতিক ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ইরি) ও ইসি- ইফাদ এর সহযোগিতায় Accelerated Improved Crop Management and strengthened Seed Supply প্রকল্পের আওতায় এ প্রশিক্ষণ কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়। মানসম্পন্ন ধান বীজ উৎপাদন, সংরক্ষণ ও বাজারজাতকরণ প্রক্রিয়া উন্নতিকরণের নিমিত্তে সদরের শুখানপুকুরী ইউনিয়ন ও পঞ্চগড় জেলা সদর উপজেলার হাফিজাবাদ ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামের মোট ৩১ জন ধান বীজ উৎপাদনকারী কৃষকরা প্রশিক্ষনে অংশ নেয়।
প্রশিক্ষণে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার কৃষি অফিসার কৃষ্ণ রায় প্রশিক্ষণ কর্মসূচির শুভ উদ্বোধন করেন। এসময় তিনি বলেন, ভালো বীজ উৎপাদনে কৃষকের সম্পৃক্ততা জরুরী এবং গুণগত মান সঠিক ভাবে সংরক্ষন করতে পারলে ফসলের উৎপাদন বেড়ে যাবে। এছাড়াও তিনি মাঠ পর্যায়ে বীজ উৎপাদনের বিভিন্ন ধাপসমুহ আলোচনা করেন।
প্রশিক্ষণ কর্মসূচিতে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলায় উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মোঃ তাজমুল হোসেন, আর ডি আর এস বাংলাদেশ এর ফিল্ড ফ্যাসিলিটেটর অমল কুমার রায়, কৃষি কর্মকর্তা অনুপ কুমার ঘোষ ও কৃষি কর্মকর্তা রবিউল আলমসহ অনেকে।
এসময় বক্তারা বলেন, এ প্রকল্পের উদ্দেশ্য ধানের ফলন, খামারের উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি, কৃষকের উচ্চ ফলনশীল ধানের নতুন জাত, উন্নত ও উচ্চ ফলনশীল জাত সমূহকে জনপ্রিয় করা। ফলস্বরূপ পুরাতন জনপ্রিয় এবং কম ফলনশীল জাত গুলো উন্নত জাত দ্বারা প্রতিস্থাপিত হবে। ধান চাষের সাথে জড়িত লাখ লাখ কৃষক তাদের নিজেদের এবং আশেপাশের কৃষকদের ব্যবহারের জন্য উন্নত পদ্ধতিতে ধানের বীজ উৎপাদন এবং বীজের পরিমাণ বহুগুণে বৃদ্ধি করতে সক্ষমতা কাড়ানো। সেই সাথে কৃষকের মানসম্পন্ন বীজ উৎপাদনের কলাকৌশল সম্পর্কে প্রশিক্ষণ প্রদান এবং দক্ষতা আরো বৃদ্ধি করা হবে। জেন্ডার বান্ধব এই প্রশিক্ষণটি কৃষকগণ মানসম্পন্ন বীজ উৎপাদনের কৌশল অতি সহজেই শিখতে পারবে। তাদের এই অর্জিত জ্ঞান ও দক্ষতা দ্বারা মানসম্পন্ন বীজ উৎপাদন বৃদ্ধি পাবে, স্থানীয় বীজ ব্যবস্থা আরো শক্তিশালী হবে। এর ফলে নতুন জাত দ্রুত কৃষক পর্যায়ে ছড়িয়ে পড়বে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.