রবিবার, অক্টোবর ২৪

ব্রাজিল পোশাকের বিনিময়ে গরুর গোশত দিতে চায় : বাণিজ্যমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: ফ্রি ট্রেড চুক্তির মাধ্যমে ব্রাজিল ও রাশিয়ার বাজার ধরতে চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে বাংলাদেশ। ব্রাজিল বাংলাদেশের তৈরি পোশাক নিতে আগ্রহী। তবে এর বিনিময়ে তারা বাংলাদেশকে গরুর মাংস দিতে চায়।

শনিবার (১৯ অক্টোবর) রাজধানীর গুলশানের একটি হোটেলে আয়োজিত ‘ফস্টারিং গ্লোবাল ফ্রি ট্রেড রিলেশনস’ শীর্ষক সেমিনারে অংশ নিয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি এসব কথা বলেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমরা ফ্রি ট্রেড (মুক্তবাণিজ্য) চুক্তির জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করছি। রাশিয়া এবং ব্রাজিলে ৫০ কোটি মানুষ আছে। এই বাজারটি যদি ফ্রি ট্রেড চুক্তির মাধ্যমে ধরতে পারি, তাহলে অন্তত ৫০ কোটি মানুষের বাজার পেয়ে যাব।

ব্রাজিল বাংলাদেশের তৈরি পোশাক নিতে চায় বলে জানিয়ে টিপু মুনসি বলেন, তবে তারা (ব্রাজিল) গরুর গোশত দিতে চায়। এটি একটি সমস্যা। গরুর গোশত নিলে কী পরিমাণ লোকসান হবে এবং তৈরি পোশাক দিয়ে কী পরিমাণ লাভ হবে, তা আমাদের বের করতে হবে।

সমন্বয়ের মাধ্যমে রাজস্ব আদায়ের ওপর গুরুত্ব দিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমাদের ব্যালেন্স কর্মসূচির মাধ্যমে এগোতে হবে। রাজস্ব আদায় অবশ্যই করতে হবে। কিন্তু সেটা জোর-জবরদস্তি করে নয়।

এছাড়া অনুষ্ঠানে উপস্থিত ডিএনসিসি মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বলেন, আমরা এখন পর্যন্ত একটি দেশের সঙ্গেও ফ্রি ট্রেড চুক্তি করতে পারিনি। এতে আমাদের পণ্য দেশের চেয়ে বেশি দামে বিক্রি করতে হয়। এছাড়া শ্রমিক অধিকার বাস্তবায়নে আন্তর্জাতিক নীতি সবদেশে প্রয়োগের জন্য চাপ সৃষ্টি করতে হবে। অন্যথায় আমরা প্রতিযোগিতায় পিছিয়ে যাচ্ছি।

তিনি বলেন, আগে বাংলাদেশ শিল্প ও বণিক সমিতি ফেডারেশনের (এফবিসিসিআই) ভোটার ছিল পাঁচ হাজার। এখন এক হাজার ৯০০ জন। এতে বোঝা যায়, অনেক ফ্যাক্টরি বন্ধ হয়ে গেছে। যারা টিকে আছে সবাই সেরার সেরা। তাই আমাদের মান নিয়ে প্রশ্ন নেই। বাণিজ্যের যে বাধাগুলো আছে, সেগুলো দূর করতে হবে।

এ দিকে অনুষ্ঠানে উপস্থিত রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার আই ইগনোটভ জানান, পারস্পরিক বাণিজ্যে উন্নয়নের জন্য তার সরকার আন্তরিক। এজন্য সব ধরনের সহযোগিতা তারা করবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *