রবিবার, অক্টোবর ২৪

চিত্রনায়ক ফারুকের পরিবারের ‘অনুরোধ’

নিউজ ডেস্কঃ ঢাকাই চলচ্চিত্রের মিয়া ভাইখ্যাত অভিনেতা ও ঢাকা-১৭ আসনের সংসদ সদস্য আকবর হোসেন পাঠান ফারুক। সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে গত ২১ মার্চ থেকে আইসিইউতে তিনি। সেখানে ডাক্তার লি’র অধীন চিকিৎসা চলছে এ অভিনেতার। বর্তমানে তার শারীরিক অবস্থার উন্নতি হয়েছে। 

কিন্তু হঠাৎ করেই গতকাল বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) সন্ধ্যায় এ অভিনেতার মৃত্যুর গুজব ছড়িয়ে পড়ে। কে বা কারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয় এই ভুয়া খবরটি।

ফারুকের এই মৃত্যুর খবর নিয়ে গুজব না ছড়ানোর অনুরোধ করেছেন তার পরিবার।

মৃত্যুর গুজব নিয়ে ফারুকের পুত্র রোশান হোসেন পাঠান গণমাধ্যমকে বলেন, ‘এটার ভয়ই করছিলাম। খ্যাতিমান কেউ অসুস্থ হলেই কিছু লোক মৃত্যুর গুজব ছড়িয়ে দেয়। হয়তো আব্বুর বেলায়ও তাই হবে। হলোও তাই।’

এদিন দপুরে মুঠোফোনে সময় নিউজকে রোশান বলেন, ‘গতকাল (বুধবার) থেকে আজকে উনার শারীরিক অবস্থা একটু ভালো। আমরা ডাকলে সাড়া দিচ্ছেন, হাত নাড়ানোর চেষ্টা করছেন।’

গত ১৫ মার্চ খিচুনি হওয়ার পর ফারুকের মস্তিস্কে একটি সিজার করা হয়েছিল। এতে তার নড়াচড়া এবং কথা বলা সীমিত হয়ে পড়েছিল। এরপর আইসিইউতে পাঠানো হয়। ১৮ মার্চ অবস্থার উন্নতি হলে কেবিনে পাঠানো হয়।

২১ মার্চ অচেতন হয়ে পড়লে আবারও আইসিইউতে পাঠানো হয় এ অভিনেতাকে। দীর্ঘদিন ধরে শারীরিক বিভিন্ন জটিলতায় ভুগছিলেন ফারুক। সবশেষ তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। নিয়মিত চেকআপের জন্য ৪ মার্চ সিঙ্গাপুর গিয়েছিলেন তিনি।

১৯৪৮ সালে ঢাকায় জন্মগ্রহণ করেন ফারুক। ১৯৭১ সালে এইচ আকবর পরিচালিত ‘জলছবি’ সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমে ঢাকাই সিনেমায় অভিষেক হয়েছিলে তার। বাংলা সিনেমার অন্যতম জনপ্রিয় এ অভিনেতা ২০১৯ সালে ঢাকা-১৭ আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *